ভারতের হাতে আসছে বিজয় মালিয়া। লোকসভা নির্বাচনের আগে বড় জয় বিজেপির।

লোকসভা ভোটের আগে ফের একবার নৈতিক জয় পেল ভারতীয় জনতা পার্টি। কিছুদিন আগে ভারতবর্ষের শত্রু ক্রিশ্চানো মিশেলকে বিদেশ থেকে ভারতে আনা হয়েছে। এবার আরও একটা বড় জয় পেল মোদি সরকার এবার লন্ডন থেকে বিজয় মালিয়া কে ভারতবর্ষে আনা হবে। ব্রিটিশ আদালত তরফে অনুমতি দিয়ে দেওয়া হয়েছে বিজয় মালিয়া কে এবার ভারতে আনতে আর কোন বাধা রইল না। ব্রিটিশ সরকার এইদিন সমস্ত তথ্য প্রমাণ বিচার বিবেচনা করে জানিয়েছেন যে বিজয় মালিয়াকে তুলে দেওয়া হবে ভারত সরকারের হাতে এবং ব্রিটিশ সরকারের এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছে নয়াদিল্লি। কিন্তু এখনো পর্যন্ত এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল করার সুযোগ রয়েছে বিজয় মালিয়ার কাছে, তিনি চাইলেই শীর্ষ আদালতে যেতে পারেন।

বিজয় মালিয়া ভারতবর্ষ থেকে ৯০০০ কোটি টাকা ঋণ নিয়েছিল মোট ১৩ টি ব্যাংক থেকে। এবং সেই ঋণ পরিশোধ না করে দেশ ছেড়ে পালিয়ে গিয়ে লন্ডনে গা ঢাকা দেন তিনি। তারপরে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে শুরু করে মোদী সরকার, মোদি সরকারের তরফ থেকে ব্রিটিশ সরকারকে একটি রিপোর্ট দেওয়া হয় সেই রিপোর্ট এর সমস্ত তথ্য প্রমাণ দিয়ে জানানো হয়েছে বিজয় মালিয়া ভারতবর্ষের ঋণ শোধ না করে দেশ ছেড়ে পালিয়েছে এবং তারপরে তাকে ব্রিটিশ পুলিশ গ্রেফতার করেন এবং তখন থেকেই তার বিরুদ্ধে মামলা শুরু হয়।

ব্রিটিশ আদালতের এই রায়ের বিরুদ্ধে বিজয় মালিয়া সিদ্ধান্ত নিয়েছিল যে তিনি উচ্চ আদালতে যাবেন কিন্তু সেই সময় তাকে ঝটকা দেয় মোদি সরকার। মোদি সরকার দেশে এক নতুন আইন পাস করেন সে আইনে এটাই বলা হয়েছে যে যদি কোন ব্যক্তি দেশ থেকে ঋণ নিয়ে পালিয়ে যায় তাহলে তার সমস্ত সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করে নিতে পারে ভারত সরকার। আর সেই খবর পাওয়ার পর সুর বদল করেছে বিজয় মালিয়া। তিনি জানিয়েছেন তিনি দেশে ফিরে দেশের সমস্ত ঋণ শোধ করে দেবেন। রাজনৈতিক বিষেজ্ঞরা মনে করছেন এটা মোদি সরকার এর একটি নৈতিক জয় লোকসভা নির্বাচনের আগে। মোদি সরকার বলেই এটা সম্ভব হয়েছে অন্য কোন সরকার হলে এত দিন গায়ে হাওয়া লাগিয়ে ঘুরে বেড়াতেন বিজয় মালিয়া।
#অগ্নিপুত্র