ভারতীয় সেনার তথ্য চুরি করছিল পাকিস্তানি গোয়েন্দা আলী মুর্তজা, হরিয়ানা থেকে হল গ্রেফতার।

টেকনোলজির যুগে যে দেশের কাছে শত্রু সম্পর্কে বেশি তথ্য বর্তমান থাকবে সেই দেশ অনেকটা এগিয়ে থাকবে। তাই প্রত্যেক দেশ নিজের নিজের গোয়েন্দা লাগিয়ে রাখে শত্রু দেশের তথ্য সংগ্রহ করার জন্য। পাকিস্তানও এখন এই কাজে নেমে পড়েছে।

হরিয়ানার ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি (CIA -২) পাকিস্তানী গোয়েন্দা আলী মুর্তজাকে আম্বালা থেকে গ্রেপ্তার করেছে।  এই  পাকিস্তানী গোয়েন্দাকে গ্রেফতার করে জেলা ম্যাজিস্ট্রেটের কাছে উপস্থাপন করে হরিয়ানার ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি । যার পর ম্যাজিস্ট্রেট আলী মুর্তজাকে বিচারিক হেফাজতে প্রেরণ করেন। জানিয়ে দি, সেনা শিবির হওয়ার সাথে সাথে অম্বালায় অনেক গুরুত্বপূর্ণ জায়গা রয়েছে। এটিতে বিমান বাহিনীর একটি ফাইটার এয়ারবেসও রয়েছে। যে কারণে পাকিস্তানি গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই এখানে নিবিড় নজর রাখে।

পুলিশের সিআইএ -২ ইউনিট খবর পেয়েছিল যে কোনও সন্দেহভাজন ব্যক্তি রেলস্টেশন থেকে সেনা অঞ্চলে প্রবেশের চেষ্টা করছেন। সতর্কতা শেষে সিআইএ -২ তাকে হেফাজতে নিয়ে যায়। তদন্তে জানা গেছে যে আলী মুর্তজা পাকিস্তানী এবং তার আম্বালা শহরের ভিসা ছিল না। সে ভারতের কয়েকটি রাজ্যে দরগাহ দেখার জন্য পাকিস্তান থেকে ভিসা পেয়েছিল।  তবে সে প্রথমে হায়দ্রাবাদ এবং তারপরে অম্বালায় অবৈধভাবে এসেছিল।

আম্বালার এসপি অভিষেক জোড়ওয়াল জানিয়েছেন, “অভিযুক্তের কাছ থেকে তিনটি ভারতীয় সিম উদ্ধার করা হয়েছে, যার একটি নিষ্ক্রিয় এবং দুজন সক্রিয় রয়েছে।” সে এর আগে আরও আটবার আম্বালায় এসেছিল। ”পাকিস্তানি গোয়েন্দা জানিয়েছে,“ শেষবার পাকিস্তানে গিয়ে তিনি পাকিস্তান সেনাবাহিনীকে একটি ভারতীয় সিম দিয়েছিলেন, যেখানে ভারতীয় সুরক্ষা বাহিনী সম্পর্কিত তথ্য সংগ্রহের জন্য এটির অপব্যবহার করেছিলেন। আসামির বিরুদ্ধে বিদেশি আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

Related Articles