ছেলেকে পরীক্ষাকেন্দ্রে পৌঁছে দিতে সাইকেলে ১০৫ কিমি পাড়ি শ্রমিক বাবার

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ বাবা মা তার সন্তানের জন্য শুধু স্বপ্ন দেখেন না। সেই স্বপ্ন পূরণ করতে নিজের সাধ্যের শেষ সীমাও অতিক্রম করেন। সম্প্রতি দেশে এমন আরো একটি ঘটনা উঠে এল সংবাদ শিরোনামে। যেখানে ছেলেকে পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছে দিতে ১০৫ কিলোমিটার সাইকেল চালালেন পিতা।

বিহারের ধর জেলার মানওয়ার তহসিলের এক গ্রামের এক পিতা প্রায় ৮৫ কিলোমিটার সাইকেল চালিয়ে ছেলেকে পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছে দিয়েছে৷ ছেলেটির দশম শ্রেণীর সাপ্লিমেন্টারী পরীক্ষা ছিল। ছেলে আশিসের কথাউ, “বাস চলাচল করছে না তাই আমরা সাইকেল চালিয়ে এসেছি। আমি অফিসার হতে চাই”

জানা যাচ্ছে, শুভরাম সোমবার রাতে ১২ টায় তার যাত্রা শুরু করে। ধরে থাকার ব্যবস্থা না থাকার কারণে, তিনি তাঁর সাথে তিন দিনের খাবার নিয়েছিলেন। টানা সাইকেল চালিয়ে মঙ্গলবার সকালে পরীক্ষা শুরু হওয়ার ঠিক ১৫ মিনিট আগে সকাল ৭ টা ৪৫ মিনিটে পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছে যায়। জানা যাচ্ছে, তারা ভোর 4 টায় মান্ডু পৌঁছেছিল।

তাদের ১০৫ কিলোমিটার সাইকেল চালিয়ে পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছানোর ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই। জেলা কালেক্টর জেলা শিক্ষা অফিসারকে নির্দেশ দেন যে ঐ পড়ুয়া এবং তার পিতাকে যত শীঘ্র সম্ভব ইতিবাচক সহায়তা প্রদান করে থাকার ব্যবস্থা এবং খাবারের উপযুক্ত ব্যবস্থা করার।

সংবাদ মাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ঐ পিতা জানিয়েছেন, তিনি একজন শ্রমিক। তিনি চান না তার পুত্রও শ্রমিক হোক। তিনি তার ছেলেকে বড় অফিসার করতে চান৷ সেই লক্ষ্যেই ১০৫ কিমি সাইকেল চালিয়ে নিয়ে এসেছেন পরীক্ষাকেন্দ্রে। তিনি আরো বলেছেন, তার ছেলে পড়াশোনায় খুবই ভালো যদিও লকডাউন এবার পড়াশোনায় ক্ষতি করেছে।