মোদী আমলে এবার ভারতীয় সেনাবাহিনীর হাতে এল যুদ্ধ বিমান “চিনুক।” এর ফলে দ্বিগুন শক্তি বৃদ্ধি হল ভারতীয় সেনার।

এই বিশেষ যুদ্ধ বিমান ভারতের হাতে পাওয়ার জন্য চুক্তি হয়েছিল মোদীজি ক্ষমতায় আসার পর। আর সেই যুদ্ধ হেলিকপ্টার এবার লোকসভা নির্বাচনের আগেই ভারতের হাতে আসতে চলেছে। আমেরিকা অনুষ্ঠানিক ভাবে সেই হেলিকপ্টার “চিনুক” ভারতের হাতে তুলে দিল।

এইদিন ভারতের হাতে যুদ্ধ বিমান “চিনুক” তুলে দেওয়া হয় আমেরিকায় ভারতীয় দূত হর্ষ শ্রীংলার উপস্থিতিতে। সেই সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন ভারতের ডিজিএও, সন্দীপ চক্রবর্তী যিনি হলেন নিউ ইয়র্কে ভারতের কনসাল জেনারেল; এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন এয়ার মার্শাল এ দেব। এইদিন রাষ্ট্রদূত হর্ষ শ্রীংলার বলেন এই মুহূর্তে ভারত এবং আমেরিকার সম্পর্ক বেশ উন্নতি লাভ করেছে। বাণিজ্যিক দিক দিয়ে একে অপরের সাথে হাতে হাত মিলিয়ে কাজ করে চলেছে।

“চিনুক” প্রথমবার উড়ানো হয় ১৯৬২ সালে। তবে সেই সময়ের চিনুক আর আজকের চিনুকের মধ্যে রয়েছে আকাশ পাতাল পার্থক্য। আধুনিক হতে হতে এই মুহূর্তে চিনুক হল বিশ্বের সবচেয়ে আধুনিক হেলিকপ্টার।
এই চিনুক একসাথে অনেক কিছু বহন করতে পারে। এই যুদ্ধ বিমানটি পাহাড়ের উপর থেকে সহজেই আঘাত হানতে পারে শত্রু পক্ষের ঘাঁটিতে। চিনুক একসাথে যুদ্ধ এবং উদ্ধারকাজ দুটিই করতে পারে। বিভিন্ন মহলের মতে এই যুদ্ধ বিমান ভারতীয় সেনাবাহিনীর হাতে আসার ফলে আগের তুলনায় অনেক গুন বৃদ্ধি পেল সেনাবাহিনী ক্ষমতা।
#অগ্নিপুত্র