fbpx
আন্তর্জাতিকনতুন খবর

এই ১টা মাত্র নিয়মের জন্য পুরো বিশ্ব ভয় করে ইজরায়েল কে। ইজরায়েল আক্রমণ করার আগে অন্তত হাজারবার ভাবে শত্রুদেশ গুলি।

এই সময় অনেকেই মনে করেন যে আমেরিকাকে ভয় করে বিশ্বের সমস্ত দেশ। কিন্তু এটা একদমই একটা ভুল ভাবনা। আপনাদের জানিয়েদি, আমেরিকা নয় বরং সারা বিশ্বের সমস্ত দেশ ভয় পায় ইজরাইলকে। এমনকি আমেরিকা, রাশিয়া, চীনের মত বিশ্বের শক্তিশালী দেশগুলি পর্যন্ত ইজরাইলের সাথে শত্রুতা করতে ভয় পায়। কারণ খুবই শক্তিশালী ইতিহাস রয়েছে এই ইজরায়েলের। কিন্তু এমনি এমনি এত সহজে ইজরায়েল এত শক্তিধর দেশে পরিণত হয়ে যায় নি। ইজরায়েল এই বিশ্বের এমন একটি দেশ যে দেশের সমস্ত মানুষের জন্য সমান নিয়ম। সেই নিয়ম থেকে কেউ বাদ যায় না, প্রধানমন্ত্রী ও রাষ্ট্রপতি সকলেই জন্য নিয়ম এক।

ইসরাইলের প্রত্যেক ছাত্রছাত্রী সরকারী স্কুলে পড়াশোনা করে। পড়াশোনা শেষ করার পর ইসরায়েলের প্রত্যেক ব্যাক্তিকে সেনায় যোগদান করতে হয় এটা বাধ্যতামূলক নিয়ম। প্রত্যেক ব্যাক্তিকে অন্তত তিন বছর সেনায় থাকতেই হবে তারপরই তারা মুক্তি পায় নিজেদের স্বাভাবিক জীবনযাপন পালন করার জন্য। আজ থেকে ৫০ বছর আগে যখন অনেক উন্নত দেশ সেই ভাবে এয়ারফোর্স তৈরি করতেই পারে নি সেই সময় ইজরায়েল নিজেদের এয়ারফোর্স খুবই শক্তিশালী করে ফেলেছিল এবং এই শক্তিশালী এয়ারফোর্সের জন্যই তারা মাত্র ৬ মাসে ৮ টি দেশ কে হারিয়ে দিয়েছিল।একবার এজিপ্টের রাষ্ট্রপতি আব্দুল নাসির ঘোষণা করেছিল যে, এবার ইজরায়েল বিনাশ করে দেবে আরবের মানুষ। এজিপ্ট এবং জর্দান নিজেদের মধ্যে ১৯৬৭ সালে একটা চুক্তি করে, সেই চুক্তির ভিত্তিতে যদি তাদের ওপর অন্য কোনো দেশ হামলা করে তাহলে একে অপরকে সহযোগিতা করবে।

এর কিছুদিন পর ইজরায়েল এবং এজিপ্টের মধ্যে একটা যুদ্ধ শুরু হয় সেই যুদ্ধে আস্তে আস্তে এজিপ্টকে সাহায্য করার নাম করে ইজরায়েলের বিরুদ্ধে নেমে পরে এজিপ্ট, কুয়েত, জর্দান, ইরাক, আলজেরিয়া, সৌদি আরব এবং সুদানের মত দেশ গুলি। ৫ ই জুন শুরু হয় “জুন ওয়ার” নামে খ্যাত এই যুদ্ধ। যুদ্ধ শুরু হওয়ার পরই ইজরায়েল ভয়াবহ হামলা করে এজিপ্টের উপর। এজিপ্টের ৪০০ ফাইটার জেট কে আকাশে ওড়ার সুযোগ দেয় নি, তার আগে মাটিতেই সেগুলিকে ধ্বংস করে দেয় ইজরায়েল। আর এই ভয়াবহতা দেখেই চমকে উঠে আরবের বাকি দেশ গুলি, তারা আর ইজরায়েল বিরুদ্ধে নামার সাহস দেখায় নি। কিন্তু ইজরায়েল কাউ কে ছাড়ে নি, বাকি দেশগুলির উপরও ক্রমাগত আঘাত আনে এবং তাদেরকেও উচিৎ জবাব দিয়ে মাত্র ৬ দিনের মধ্যে যুদ্ধ শেষ করে দেয়।এই যুদ্ধে ইসরাইল ছিল অত্যন্ত ছোট একটি দেশ এবং তারা ছিল একা, অপরদিকে তাদের শত্রু ছিল আটটি বড় বড় দেশ। কিন্তু ইজরাইল ভয় পায় নি এবং ইসরাইলের এই যুদ্ধে মূল পরিকল্পনা ছিল যুদ্ধ শুরু হবার আগেই শত্রুপক্ষের মনোবল ভেঙে তছনছ করে দেওয়া এবং ইসরাইল সেটাই করেছে আর পেয়েছে বড় সাফল্য। 

আপনাদের জানিয়েদি ইজরায়েল আগে ভারতবর্ষের মতই উদারপন্থী দেশ ছিল অর্থাৎ এখন ভারতবর্ষ যেমন উদারপন্থী একটা দেশ সেই রকমই ছিল ইজরায়েল। কিন্তু বারে বারে শত্রুপক্ষের আক্রমণের ফলে ইজরাইলের দেওয়ালে পিঠ ঠেকে যায় এবং তারা পাল্টাতে দিতে শুরু করে। বর্তমান পরিস্থিতিতে তারা অন্যতম ভয়ঙ্কর দেশ হয়ে উঠেছে তাদের শত্রুদের কাছে। এই মুহূর্তে যত বড়ই দেশ হোক না কেন যতই অস্ত্রশস্ত্র থাকুক না কেন ইসরাইলের বিরুদ্ধে কোনো রকম পরিকল্পনা নেওয়ার আগে হাজারবার ভাবতে হবে অন্যান্য দেশ গুলিকে।
#অগ্নিপুত্র

Open

Close