দেশজুড়ে নাগরিকতা আইন, এনআরসি আর এনপিআর নিয়ে বিক্ষোভ চলছে। কেন্দ্র সরকার ১০ জানুয়ারি ২০২০ থেকে দেশে নাগরিকতা সংশোধন আইন লাগু করে দিয়েছে। এর আগে সরকারের তরফ থেকে জানানো হয়েছিল যে, এই বছরেই এনপিআর এর কাজ শুরু করা হয়ে। এবার সরকারের সুত্র জানায় যে, সমস্ত রাজ্যে রাষ্ট্রীয় জনসংখ্যা রেজিস্টারের বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়েছে। আরেকদিকে কেরল আর পশ্চিমবঙ্গ এনপিআর স্থগিত রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

ন্যাশানাল পপুলেশন রেজিস্টারের প্রক্রিয়াও ১লা এপ্রিল থেকে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চলবে। পশ্চিমবঙ্গ আর কেরল ন্যশানাল পপুলেশন রেজিস্টার না লাগু করার কথা রাজ্যে আধিকারিক স্তরে জানিয়ে দিয়েছে। এমনকি তাঁরা রেজিস্টার জেনারেল ইন্ডিয়াকেও এই ব্যাপারে তথ্য দেওয়া হয়েছে। এছাড়া বাকি রাজ্য গুলো ন্যশানাল পপুলেশন রেজিস্টার প্রক্রিয়া নোটিফাই করে দিয়েছে।

এনপিআরে কোন বায়োম্যাট্রিক আর কোন প্রমাণ চাওয়া হচ্ছেনা। এনপিআরে আধার নাম্বার, মোবাইল নাম্বার, প্যান কার্ড নম্বর, ডিএল নম্বর, বাড়ির নাম্বার চাওয়া হবে। এছাড়া আরও কোন কাগজ চাওয়া হবেনা। সেন্সাস আর এনপিআর প্রথম পর্যায়ের ফর্মে হাউসহোল্ডকে জানাতে হবে যে, এই তথ্য তাঁরা নিজেরাই দিয়েছে আর সেটা সম্পূর্ণ সঠিক।