ভোটের ফলাফল বেরোনোর পর উধাও রাহুল গান্ধী! খুঁজে পেলে মেসেজ করুন

0
29

মাই ইন্ডিয়া ডেস্কঃ হরিয়ানা আর মহারাষ্ট্রতে হওয়া বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা হয়ে গেছে। দুই রাজ্যেই কংগ্রেসের পরিস্থিতি আগের থেকে অনেক ভালো। একটু হলেও ঘুরে দাঁড়িয়েছে কংগ্রেস। সবাই দুই রাজ্যের পরিণাম নিয়ে কথা বলেছেন। এমনকি কংগ্রেসের কর্মীরা দুই রাজ্যে কংগ্রেসের সন্তোষজনক ফল নিয়ে খুশিও পালন করেছেন। কিন্তু এখনো পর্যন্ত কংগ্রেসের প্রাক্তন সভাপতি তথা কেরলের সাংসদ রাহুল গান্ধীর কোন প্রতিক্রিয়া সামনে আসেনি।

হরিয়ানার কথা বললে, রাজ্য কংগ্রেস আশার থেকে অনেক ভালো ফল করেছে। বিধানসভা নির্বাচনের আগে কংগ্রেসের পরিস্থিতি খুবই খারাপ ছিল হরিয়ানায়। দলে দলে পার্টির নেতারা দল ছাড়ছিলেন। এমনকি অনেকে বিরোধী দল গুলোতেও যোগ দিয়েছেন। আবার দলের দায়িত্বে থাকা এক নেতা দিল্লীতে গিয়ে সনিয়া গান্ধীর বাড়ির সামনে টিকিট বণ্টন নিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছিলেন। এমত অবস্থায় হরিয়ানায় কংগ্রেসের পক্ষে ১০ টি আসনও জেতা সম্ভব ছিলনা বলে বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছিলেন।

কিন্তু কংগ্রেস অভূতপূর্ব ভাবে কাম ব্যাক করে ৩১ টি আসন দখল করে নেয়। কংগ্রেসের এই কামব্যাকের কারণে হরিয়ানা এখন ত্রিশঙ্কু বিধানসভা হয়ে গেছে। যদিও ৮ জন নির্দলীয় বিধায়ক বিজেপিকে সমর্থন দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছেন। এবং হরিয়ানার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মনোহর লাল খট্টর আগামী লাক মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ নিতে চলেছেন। আরেকদিকে মহারাষ্ট্র বিধানসভাতেও কংগ্রেস আগের থেকে অনেক ভালো ফল করেছে। আবার পাঞ্জাব বিধানসভার উপনির্বাচনেও কংগ্রেস জয় হাসিল করে নিয়েছে।

সনিয়া গান্ধী কংগ্রেসের নেতা তথা হরিয়ানার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ভুপেন্দ্র সিং হুড্ডার সাথে কথা বলেছেন। উত্তর প্রদেশের দায়িত্বে থাকা প্রিয়াঙ্কা বঢড়াও কংগ্রেসের ফলাফল নিয়ে খুশি জাহির করেছেন। কিন্তু কংগ্রেসের প্রাক্তন সভাপতি রাহুল গান্ধীর থেকে এখনো কোন প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি। দুই রাজ্যের ফলাফল নিয়ে ওনার ট্যুইটার অ্যাকাউন্টেও কোন পোস্ট হয়নি। শেষ বার উনি বিএসএনএল আর এমটিএনএল কে একজোট করার ইস্যু নিয়ে ট্যুইট করেছিলেন।

যদিও, উনি সনিয়া গান্ধীর সাথে বৃহস্পতিবার সন্ধেয় ফলাফল নিয়ে চর্চা করেছেন বলে জানা যায়। আরেকদিকে কোটি কোটি টাকার কেলেঙ্কারিতে যুক্ত কংগ্রেস নেতা ডিকে শিবকুমারের জামিন পাওয়ার পর ওনার সাথে সাক্ষাৎ করেছেন বলে জানা যায়।