গরীব দরদী মোদী সরকারকে ৭৫০০ কোটি টাকার সাহায্য বিশ্ব ব্যাংকের

করোনার সঙ্কটের মধ্যে বিশ্ব ব্যাংক (World Bank) ভারতকে (India) বড় স্বস্তি দিলো। সরকারের কার্যক্রমের জন্য বিশ্ব ব্যাংক এক বিলিয়ন ডলার (প্রায় ৭ হাজার ৫০০ কোটি টাকা) এর প্যাকেজ ঘোষণা করেছে। এটি একটি সামাজিক সুরক্ষা প্যাকেজ। এর আগে করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ব্রিক্স দেশের নিউ ডেভলপমেন্ট ব্যাংক ভারতে এক বিলিয়ন ডলারের এমারজেন্সি সহায়তা রাশি দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছিল।

বিশ্ব ব্যাংকের নির্দেশক জুনেই আহমেদ বলেন, সামাজিক দূরত্বের কারণে অর্থব্যবস্থা তলানিতে যাচ্ছে। ভারত সরকার গরীব কল্যাণ যোজনার দিকে নজর দিয়েছে আর গরীব এবং কমজোর শ্রেণীর মানুষদের দিকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে। সরকারের তরফ থেকে অর্থব্যবস্থাকে পুনরুজ্জীবিত করতে পদক্ষেপও নেওয়া হচ্ছে।

বিশ্বব্যাংক দ্বারা দেওয়া টাকার ব্যবহার দেশের করোনায় আক্রান্ত রোগীদের পরীক্ষা, করোনা হাসপাতাল গুলোকে উন্নত করা আর ল্যাব বানানতে ব্যবহার করা হবে। ব্যাংক এর আগেই ২৫ টি উন্নয়নশীল দেশের জন্য আর্থিক প্যাকেজের ঘোষণা করেছিল। ব্যাংক জানিয়েছে যে, ভারতকে এই ঋণ দেওয়ার প্রধান উদ্দেশ্য হল ভারত যেন করোনার সংক্রমণ রোখার জন্য সাহায্য প্পায় আর করোনার কারণে হওয়া মানবিক, সামাজিক আর আর্থিক ক্ষতি কম করা যায়।

আরেকদিকে ভারতে করোনার ভাইরাসের প্রকোপ লাগাতার বেড়েই চলেছে। গোটা ভারতে এখন মোট ৮১ হাজার ৯৭০ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। মোট মামলার মধ্যে ৫১ হাজার ৪০১ টি মামলা সক্রিয়। ২৭ হাজার ৯২০ জন এই মারক ভাইরাসকে হারিয়ে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। আর ২ হাজার ৬৪৯ জনের মৃত্যু হয়েছে।